ফেসবুক-গুগল-টুইটারের সিইওদের সিনেট কমিটির তলব

0
41

সম্প্রতি ফেসবুকের পাঁচ কোটি ব্যবহারকারীর তথ্য গোপনে হাতিয়ে নেয়ার ঘটনায় অনেকটা বিপদের মধ্যে রয়েছে ফেসবুক। ব্যবহারকারীদের তথ্য সুরক্ষায় কী কী পদক্ষেপ নেয়া হয় তা জানতে ফেসবুক, গুগল ও টুইটারের সিইওদের ডেকে পাঠিয়েছে মার্কিন কংগ্রেসের একটি কমিটি।

আগামী ১০ এপ্রিল ফেসবুকের মার্ক জাকারবার্গ, গুগলের সুন্দর পিচাই এবং টুইটারের জ্যাক ডরসেকে ডেকে পাঠিয়েছেন সিনেট জুডিশিয়ারি কমিটির চেয়ারম্যান চাক গার্সলে।

গত সোমবার এক বিবৃতিতে গার্সলে জানিয়েছেন, গ্রাহকদের তথ্যের সুরক্ষা এবং নজরদারির বিষয়ে ভবিষ্যতে কী পরিকল্পনা রয়েছে, তা নিয়ে আলোচনা করতেই জাকারবার্গকে ডাকা হয়েছে। বাণিজ্যিক ক্ষেত্রে গ্রাহকদের তথ্য ব্যবহারের পাশাপাশি সেই তথ্য সংগ্রহের ক্ষেত্রে ব্যক্তিগত গোপনীয়তার বিষয়ে কী ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে, তা নিয়েও আলোচনা করা হবে। একই বিষয়ে জানতে গুগল ও টুইটারের সিইওকেও ডাকা হয়েছে।

বিবৃতিতে আরও জানানো হয়েছে, ‘কীভাবে তথ্যের অপব্যবহার অথবা হাত বদল হয়েছে এবং তা রুখতে ফেসবুকের মতো সংস্থা কী ব্যবস্থা নিচ্ছে, তা খতিয়ে দেখা হবে।’

সম্প্রতি তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থাগুলির কাছ থেকে তথ্য সুরক্ষার বিষয়ে জবাব চেয়েছেন সিনেটর মার্ক ওয়ার্নারও। ফেসবুক লক্ষাধিক মার্কিনির তথ্য সুরক্ষিত রাখতে ব্যর্থ হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন সিনেটর এড মার্কেও।

এছাড়া তথ্য ফাঁসের ঘটনার পর তথ্য সুরক্ষার ক্ষেত্রে কী ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে- ফেসবুকের কাছে তা জানতে চেয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়নের জাস্টিস কমিশনার ভেরা জোউরোভা।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালের মার্কিন নির্বাচনে প্রায় পাঁচ কোটি ফেসবুক ইউজারের তথ্য গোপনে হাতিয়ে নিয়ে তা কাজে লাগিয়েছিল ক্যামব্রিজ অ্যানালাইটিকা নামের একটি সংস্থা। সম্প্রতি ওই সংস্থার সাবেক কর্মী ক্রিস্টোফার ওয়েলি নামের এক কানাডিয় নাগরিক এ ঘটনা ফাঁস করে দেন। এরপরই ফেসবুকের তথ্য হাতিয়ে একেরপর একে দুর্নীতির দাবি উঠতে থাকে।

জানা যায়, ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে ব্রিটেনের বের হওয়ার ঘটনায় এমন তথ্য কাজে লাগানো হয়েছিল। এছাড়া ভারতের গত নির্বাচনেও এমনটি ঘটানো হয়েছিল বলেও দাবি উঠেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here